বঙ্গমাতার জন্মবার্ষিকীতে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের আলোচনা সভায় বক্তারা, বঙ্গবন্ধুর প্রতিটি স্বপ্নের সাথে স্বপ্ন মিলিয়ে বঙ্গমাতা অসাধারণ ভূমিকা পালন করেছেন

Uncategorized জাতীয়

নিজস্ব প্রতিবেদক ঃ সোমবার ৮ আগস্ট, স্বাধীনতার মহান স্থপতি, সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সহধর্মিণী বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিব এর ৯২তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষ্যে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয় আজ ঢাকায় জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক আলোচনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। জাতীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি ফরিদা ইয়াসমিন প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন।

মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ মোস্তফা কামালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব সঞ্জয় কুমার বণিক, অতিরিক্ত সচিব বেগম লায়লা জেসমিন এবং নৌপরিবহন অধিদফতরের মহাপরিচালক কমডোর মো. নিজামুল হক।

বক্তারা বলেন, বাঙালি জাতির স্বাধীনতা লাভে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিরবে ও নিভৃতে অনুপ্রেরণা ও সহযোগিতা করেছেন মহিয়সী নারী বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিব। তিনি কান্ডারির মতো দেশ ও দলের হাল ধরেছেন।

এ মহিয়সী নারীর জীবন ও কর্ম নিয়ে গবেষণা করা প্রয়োজন। ফজিলাতুন নেছা মুজিব বঙ্গবন্ধুর প্রেরণার উৎস হিসেবে কাজ করেছেন। তিনি বঙ্গবন্ধুর ছায়াছবি ছিলেন।

বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতার নাম ওতপ্রোতভাবে জড়িত। বঙ্গবন্ধুর প্রতিটি স্বপ্নের সাথে স্বপ্ন মিলিয়ে বঙ্গমাতা অসাধারণ ভূমিকা পালন করেছেন। কৌশলী ও বিচক্ষণতা দিয়ে বঙ্গবন্ধুকে সাহস দিয়েছেন।

বঙ্গমাতা সকল প্রকার লোভ-লালসার উর্ধ্বে উঠে সাদামাটা জীবনযাপন করেছেন। দেশের জন্য আমাদের জন্য কাজ করার লক্ষ্যে একজন মা হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে গড়ে তুলেছেন। এজন্য আমরা বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতার প্রতি আমরা কৃতঞ্জ।

অনুষ্ঠানে মহিয়সী নারী বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিবসহ ১৫ আগস্টের শহীদদের আত্মার শান্তি কামনায় মোনাজাত করা হয়।


Leave a Reply

Your email address will not be published.