আমদানিকারক, পাইকারি ও খুচরা ব‍্যবসায়ীদের সাথে ভোক্তা অধিদপ্তরের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

Uncategorized জাতীয়



নিজস্ব প্রতিবেদক ঃ সোমবার ২৩ জানুয়ারি,সকাল ১১ টায় অধিদপ্তরের প্রধান কার্যালয়ের সভাকক্ষে (১, কারওয়ান বাজার, টিসিবি ভবন-৮ম তলা) নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের (আদা, রসুন, হলুদ ও শুকনো মরিচ) সরবরাহ ও মূল্য স্থিতিশীল রাখার লক্ষ্যে আমদানিকারক, পাইকারি এবং খুচরা ব‍্যবসায়ীদের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে, এ খবর সংশ্লিষ্ট সুত্রের।

উক্ত মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয় ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) এ.এইচ.এম. সফিকুজ্জামান।

সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন এফবিসিসিআইয়ের সহ-সভাপতি মোঃ আমিন হেলালী, ক্যাবের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট হুমায়ুন কবীর ভূঁইয়া, বাংলাদেশ ট্রেড এন্ড ট্যারিফ কমিশনের প্রতিনিধি, ডিজিএফআইয়ের প্রতিনিধি, এনএসআইয়ের প্রতিনিধি, বিভিন্ন ব্যবসায়ী প্রতিনিধিবৃন্দ এবং প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ। এছাড়াও জুমে সংযুক্ত ছিলেন চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জ ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক।

উল্লেখ্য মতবিনিময় সভাটি আধিদপ্তরের অফিসিয়াল ফেইসবুক পেজে লাইভ সম্প্রচার করা হয়।
আসন্ন রমজান উপলক্ষ্যে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য বিশেষ করে আমদানিকৃত পণ্য (আদা, রসুন) এর সরবরাহ ও মূল্য যেন স্থিতিশীল থাকে সে বিষয়ে আলোচনা করা হয়।

সভায় নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য অস্থিতিশীল ও সরবরাহ সংকট হওয়ার ক্ষেত্রে বিদ্যমান এলসি খোলার ক্ষেত্রে সমস্যা, অসাধু ব্যবসায়ীদের মাধ্যমে পণ্য মজুদ করে কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করা ও পূর্বের মূল্যে কেনা পণ্য বর্ধিত নতুন মূল্যে বিক্রি করা, আন্তর্জাতিক বাজারে মূল্য বৃদ্ধি ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা হয়।

এফবিসিসিআইয়ের সহ-সভাপতি মোঃ আমিন হেলালী, অসাধু ব্যবসায়ীরা কৃত্রিম সংকট সৃষ্টি করে পণ্যের মূল্য বৃদ্ধি করলে তাদের আইনের আওতায় শাস্তি প্রদানের ব্যবস্থা গ্রহণের বিষয়ে বলেন।

তিনি ব্যবসায়ীগণকে সঠিক মূল্যে ভোক্তাগণের নিকট পণ্য বিক্রয়ের অনুরোধ জানান।
সভায় মহাপরিচালক নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য স্থিতিশীল ও সরবরাহ স্বাভাবিক রাখার বিষয়ে বিভিন্ন গুরুত্ত্বপূর্ণ দিক নির্দেশনা প্রদান করেন।
তিনি ব্যবসায়ীগণকে সকল আইন মেনে ব্যবসা করা, সঠিক মূল্যে ভোক্তাদের নিকট পণ্য বিক্রয় করা, ক্রয়-বিক্রয়ের ভাউচার দোকানে সংরক্ষণ করা ও কৃত্রিম সংকট তৈরি করে পণ্যের মূল্য বিদ্ধি না করার বিষয়ে আহবান জানান। তিনি সভায় অংশগ্রহণকারীবৃন্দের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন।

তিনি আরো বলেন সভায় নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য স্থিতিশীল ও সরবরাহ স্বাভাবিক রাখার বিষয়ে যে সকল সাজেশন এসেছে তা সুপারিশ সহ একটি লিখিত প্রতিবেদন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করা হবে।

আলোচনা শেষে মহাপরিচালক আসন্ন রমজান উপলক্ষ্যে দ্রব্যমূল্য যেন বৃদ্ধি না পায় সে বিষয়ে সকলে সমন্বিতভাবে কাজ করবে সে বিষয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

তিনি সভা শেষে প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দকে জাতীয় ভোক্তা-অধিকার অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের কার্যক্রম প্রচারে সহযোগিতার জন্য ধন্যবাদ জানান।


Leave a Reply

Your email address will not be published.