অগ্নি সন্ত্রাসীদের প্রতিহত করতে ৭ তারিখ ভোটকেন্দ্রে আসুন  : কৃষিবিদ আফম বাহাউদ্দীন  নাছিম

Uncategorized জাতীয় ঢাকা বিশেষ প্রতিবেদন রাজধানী রাজনীতি

নিজস্ব প্রতিবেদক  :  বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও ঢাকা ৮ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম বলেছেন,বিএনপি জামাত বিভিন্ন কর্মসূচির নামে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করে মানুষ হত্যা করছে। এরা কখনো দেশের মানুষদের নিয়ে ভাবে না। এরা এখনও দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র নিয়ে ব্যস্ত আছে। এদের প্রতিহত করতে হলে ৭ তারিখ সকলেই ভোটকেন্দ্রে আসুন।দেশের মানুষের ভোট ও সমর্থনের মাধ্যমে এদের আমরা প্রতিহত করব।


বিজ্ঞাপন

আজ রবিবার  ৩১ ডিসেম্বর, রাজধানীর হলি ফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে সর্বস্তরের শিক্ষক চিকিৎসক কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সাথে মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমাদের কোনো শত্রু নেই। আমরা কারো সাথে শত্রুতাও করতে চাই না। আমরা আমাদের শিক্ষা সংস্কৃতি ঐতিহ্যের উপর ভিত্তি করে এগিয়ে যাব। আমাদের আগানোর পথে কারা বাধা দিবে তাদের চিনে রাখতে হবে। তাদের অতীত কর্মকাণ্ড,নিকট অতীত কর্মকাণ্ড এবং এখন তারা কি চায় এগুলো জানতে হবে। তাদের নির্বাচন করতে কোন বাধা নাই। তাও তারা কেন নির্বাচন করতে চায় না সেটি তারাই ভালো জানে। আমরা নৌকায় ভোট চাই আর তারা বলে ভোট দিতে যাবেন না। এটি সংবিধান ও গণতান্ত্রিক অধিকার বিরোধী।

তিনি আরও বলেন,যারা স্বৈরাচার, সাম্প্রদায়িক শক্তি,যারা মানুষকে সম্মান করতে জানে না, দেশের মানুষের বিবেক বোধকে যারা জাগ্রত করতে পারে না, তাদেরকে কেন মানুষ বিশ্বাস করবে ও আস্থা রাখবে। এদের তথাকথিত আন্দোলনকে মানুষ সমর্থন করে না। মিথ্যা ও অসৎের পক্ষে দাঁড়ানো যায় না। সত্যের জয় অনিবার্য।

নাছিম বলেন, আমরা একটি সুন্দর বাংলাদেশ চাই। আমরা একটি সুন্দর ও সুষ্ঠু নির্বাচন উপহার দিতে চাই।ভোটাররা ভোট দিবে সে ভোটে আমরা নির্বাচিত হতে চাই। আমাদের পর্যবেক্ষকের সার্টিফিকেট এর দরকার নেই। দেশের জনগণ সুন্দর নির্বাচনের মাধ্যমে যাকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করবে সেই নেতৃত্বে আসবে। এটি যে কোন দলের হতে পারে। আমাদের অভিজ্ঞতা থাকতে কারোর থেকে ধার করা বুদ্ধির প্রয়োজন নেই।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা গত ১৫ বছর বাংলাদেশকে পাল্টে দিয়েছেন ও বদলে দিয়েছেন। এটি তিনি তার সাহসের জন্যই পেরেছেন। তিনি তার দৃঢ়তা ও সততার মাধ্যমে সব বাধাকে জয় করেছেন। দেশের মানুষকে স্বপ্ন দেখিয়েছেন এবং সেটি পূরণের পরিকল্পনা নিয়ে পূরণ করে দেখিয়েছেন। বঙ্গবন্ধু কন্যাকে আমাদের সমর্থন করে পুনরায় নির্বাচিত করতে হবে। আমাদের তার চিন্তা, চেতনা, সততা দক্ষতা দেখে তাকে ভোট দিতে হবে। তিনি আমাদের বাতিঘর।

তিনি আরও বলেন, দেশের মানুষের শান্তি, উন্নয়ন, অগ্রগতি শুধুমাত্র দেশরত্ন শেখ হাসিনার দ্বারাই সম্ভব। তিনি তার যোগ্যতা ও সততা দিয়ে তা প্রমাণ করেছেন। তিনি আবার নির্বাচিত হলে দেশের উন্নয়ন ও অগ্রগতি অব্যাহত থাকবে। আমরা চাই স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে। আমাদের স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ একটাই আমরা বিশ্বের বুকে মাথা উঁচু করে দাঁড়াতে চাই। আমাদের মর্যাদা যাতে বিশ্বে অক্ষুন্ন থাকে এটাই আমাদের প্রত্যাশা।

বাহাউদ্দিন নাছিম সকাল ৯টায় হাবিবুল্লাহ কলেজ এর পিছনে ৪নং সার্কিট হাউজ সোসাইটির ভোটারদের সাথে মত বিনিময় সভার মাধ্যমে তার গণসংযোগ শুরু করেন ।পরবর্তীতে হলি ফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল সর্বস্তরের শিক্ষক চিকিৎসক কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ এর সাথে মতবিনিময়, বারডেম জেনারেল হাসপাতালে স্বাচিপ এবং সকল এসোসিয়েশন এর সাথে মতবিনিময়, ইষ্টার্ন প্লাস মার্কেটের সামনে মহানগর দক্ষিন আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের পথ সভা ও গণসংযোগ, ১২ নং ওয়ার্ডের মালিবাগ মোড় এলাকা শুরু করে শেখ এস্কান্দার এর বাড়ি এলাকায় গণসংযোগ, শান্তিবাগ উচ্চ বিদ্যালয়, মালিবাগ ইউনিট নির্বাচনী কার্যালয় হয়ে মারুফ মার্কেট এলাকায় গণসংযোগ করেন।

তিনি দুপুরে বাংলাদেশ আওয়ামী কর আইনজীবী লীগের সাথে মত বিনিময় সভা করেন। বিকেলে ১২ নং ওয়ার্ডের মৌচাক মার্কেট, আনারকলি মার্কেট এলাকায় গণসংযোগ, ফরচুন শপিংমল এলাকায় গণ সংযোগ, সেঞ্চুরী কোয়াটার এলাকায় গণসংযোগ, ইস্কাটন গার্ডেন এলাকায় গণসংযোগ করেন। সন্ধ্যায় তিনি স্টার্ট বিজনেজ এ্যাসোসিয়েশন পরিষদের সাথে মতবিনিময় সভা, অপ্সরা,অন্তরা, অনন্যা, অগ্রনী সমিতি এপার্টমেন্টবাসীর সাথে মতবিনিময় সভা করেন।

মত বিনিময় সভায় বিশিস্ট ব্যবসায়ী মোতাহার হোসেন, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ সভাপতি শামীম শাহরিয়ার,যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মোবাশ্বের চৌধুরী কমিশনার আবুল বাশার, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুল্লাহ আল সায়েম, গণযোগাযোগ সম্পাদক ওবায়দুল হক খান,গ্রন্থনা ও প্রকাশনা সম্পাদক মনোয়ারুল ইসলাম বিপুল, প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সম্পাদক আনোয়ার পারভেজ টিংকুসহ শত শত নেত কর্মী ও ব্যবসায়ীগন তার সাথে ছিলেন।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *